ঢাকা, রোববার, ১৬ জুন ২০১৯ | ২ আষাঢ় ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

ক্রিকেট : বিশ্ব মঞ্চে বল হাতে আগুন ঝরানো তারকারা


অমৃতবাজার ডেস্ক

প্রকাশিত: ০৬:১৪ পিএম, ২০ মে ২০১৯, সোমবার
ক্রিকেট : বিশ্ব মঞ্চে বল হাতে আগুন ঝরানো তারকারা

সপ্তাহদেড়েক পরই ইংল্যান্ডে বসতে যাচ্ছে ক্রিকেটের সবচেয়ে বড় মহারণ বিশ্বকাপ ক্রিকেট। যা কাউকে করে তারকা, কাউকে বানায় মহাতারকা। প্রতিপক্ষের ব্যাটিং লাইন আপ গুঁড়িয়ে দিয়ে কোনো কোনো বোলারও হয়ে উঠেন তারকা থেকে মহাতারকা। পেসাররা নিজেদের গতি আর স্পিনাররা মায়াবী ঘূর্নিতে তুলে নেন প্রতিপক্ষ ব্যাটসম্যানদের উইকেট।

চলুন দেখে নেয়া যাক বিশ্বকাপে উইকেট শিকারের দিক থেকে সেরা পাঁচ বোলারদের:

ক্রিকেট বিশ্বকাপে বোলিং রেকর্ডগুলোর বেশিরভাগই নিজের ঝুলিতে পুড়েছেন সাবেক অস্ট্রেলিয়ান পেসার গ্লেন ম্যাকগ্রাহ। স্বভাবতই উইকেট শিকারের তালিকার শীর্ষেই রয়েছেন এই অসি কিংবদন্তি। বিশ্বকাপে ৩৯ ম্যাচ খেলে ম্যাকগ্রাহর উইকেটসংখ্যা ৭১ টি। ওভার প্রতি রান দিয়েছেন মাত্র ৩.৯৬ গড়ে। ইনিংসে পাঁচ উইকেট পেয়েছেন ২ বার। বিশ্বকাপের ইতিহাসে সেরা বোলিং ফিগারটিও তার দখলে। ২০০৩ বিশ্বকাপে নামিবিয়ার বিপক্ষে মাত্র ১৫ রানে সাজঘরে পাঠিয়েছিলেন ৭ ব্যাটসম্যানকে।

উইকেট শিকারের তালিকায় দ্বিতীয় স্থানে রয়েছেন সাবেক শ্রীলংকান গ্রেট মুত্তিয়া মুরালিধরন। বিশ্বকাপে ৪০ ম্যাচে নিজের ডান হাতের ঘূর্নির জাদুতে উইকেট তুলে নিয়েছেন ৬৮ টি, ওভার প্রতি রান খরচ করেছেন ৩.৮৮ করে। তবে ইনিংসে একবারও পাঁচ উইকেট নেই মুরালিধরনের, সেরা বোলিং ১৯ রানে ৪ উইকেট।

এ তালিকার তৃতীয় স্থানে রয়েছেন সাবেক পাকিস্তানি অধিনায়ক ওয়াসিম আকরাম। ৩৮ ম্যাচে ওভার প্রতি ৪.০৮ গড়ে রান দিয়ে তিনি শিকার করেছেন ৫৫টি উইকেট। ইনিংসে একবার পাঁচ উইকেট পেয়েছেন আকরাম। ১৯৯২ সালে নিজ দেশকে বিশ্বকাপ জেতানোর পথে আসরের সর্বোচ্চ ১৮ উইকেট নিয়েছিলেন তিনি।

বিশ্বকাপে উইকেট শিকারির তালিকায় তার পরের স্থানটি লঙ্কান লিজেন্ড চামিন্দা ভাসের। ক্রিকেটের বিশ্ব মঞ্চে ৩১ ম্যাচে তার উইকেট সংখ্যা ৪৯ টি। ওভার প্রতি ৩.৯৭ গড়ে রান খরচ করা ভাস একবার পেয়েছেন পাঁচ উইকেট। শীর্ষ পাঁচ বোলারের তালিকায় সবশেষ নামটি ভারতের জহির খানের। বিশ্বকাপের খেলা ২৩ ম্যাচে তার উইকেট সংখ্যা ৪৪টি। ওভার প্রতি ৪.৪৭ গড়ে রান দিয়ে একবার পেয়েছেন পাঁচ উইকেট।

দরজায় কড়া নাড়ছে আরো একটি ক্রিকেট বিশ্বকাপ। এবারের বিশ্বকাপ থেকে কোনো বোলার তারকা হয়ে উঠতে পারেন কিনা অথবা আসতে পারেন কিনা এই তালিকায়?- তা জানতে বিশ্বকাপের শেষ পর্যন্ত অপেক্ষা তো করতেই হচ্ছে।

অমৃতবাজার/অনি