ঢাকা, শুক্রবার, ২৭ এপ্রিল ২০১৮ | ১৪ বৈশাখ ১৪২৫ বঙ্গাব্দ

দেশি-বিদেশি শিশুরা আঁকলো বঙ্গবন্ধু ও বাংলাদেশের ছবি


লিসবন (পর্তুগাল) সংবাদদাতা

প্রকাশিত: ১২:২৮ পিএম, ১৮ মার্চ ২০১৮, রোববার
দেশি-বিদেশি শিশুরা আঁকলো বঙ্গবন্ধু ও বাংলাদেশের ছবি

বাংলাদেশের স্বাধীনতার স্থপতি বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৯৮তম জন্মদিন ও জাতীয় শিশু দিবস যথাযথভাবে উদ্‌যাপিত হয়েছে পর্তুগালে।

পর্তুগালের স্থানীয় সময় শনিবার (১৭ মার্চ) বিকাল ৪টায় লিসবনের কানাই অডিটোরিয়াম, ফোরাম মাল্টিকালচারাল হলে প্রবাসী বাংলাদেশিদের অংশগ্রহণে নানা আয়োজনের মধ্য দিয়ে বঙ্গবন্ধুর জন্মদিন ও শিশু দিবস পালন করা হয়। এই অনুষ্ঠানের আয়োজন করে পর্তুগালের বাংলাদেশ দূতাবাস লিসবন।

পুরো অনুষ্ঠানের সভাপতিত্ব করেন বাংলাদেশ দূতাবাস লিসবনের রাষ্ট্রদূত মোঃ রুহুল আলম সিদ্দিকী, সঞ্চালনায় ছিলেন দূতালয় প্রধান হাসান আব্দুল্লাহ তৌহিদ। শিশুদের চিত্রাঙ্কন প্রতিযোগিতার মধ্য দিয়ে অনুষ্ঠানের শুরু হয়। চিত্রাঙ্কন ছাড়াও নানা ধরনের ক্রীড়া প্রতিযোগিতা এর মধ্যে অন্যতম ছিলো মার্বেল দৌড়, বল নিক্ষেপ, লক্ষ্যভেদ। এতে বাংলাদেশি শিশুদের সঙ্গে পর্তুগিজ শিশুরা ছাড়াও বিভিন্ন দেশের অভিবাসী শিশুরা অংশ নেয়। শনিবার পর্তুগালে সাপ্তাহিক শনিবার হওয়ায় বিপুল সংখ্যাক বাংলাদেশি পরিবার ও শিশুরা অংশগ্রহণ করেন।

বিভিন্ন প্রতিযোগিতায় বিজয়ী হওয়া শিশুদের হাতে পুরস্কার তুলে দেন রাষ্ট্রদূত জনাব রুহুল আলম সিদ্দিকী এবং স্ত্রী জনাবা রিমা আরা।

প্রতিযোগিতা ও পুরস্কার বিতরণ শেষে সংক্ষিপ্ত আলোচনায় রাষ্ট্রদূত মো. রুহুল আলম সিদ্দিকী বলেন, বঙ্গবন্ধুর বাংলাদেশের কথা কারও অজানা নয়। বঙ্গবন্ধু তরুণ বয়স থেকেই কোনো অন্যায়কে প্রশ্রয় দেননি। অন্যায় অসঙ্গতি দেখলেই প্রতিবাদ করেছেন। আজকের শিশু কিশোর আর তরুণদের বঙ্গবন্ধুর আদর্শে অনুপ্রাণিত হতে হবে। তাহলেই বঙ্গবন্ধুর সোনার বাংলা গড়ার সম্ভব হবে।

সবশেষে শিশুদের নিয়ে বঙ্গবন্ধুর জন্মদিনের কেক কাটেন রাষ্ট্রদূত জনাব রুহুল আলম সিদ্দিকী এবং উপস্থিত নেতৃবৃন্দ। আলাদা করে কেক কেটে বঙ্গবন্ধুর জন্মদিন পালন করেন পর্তুগাল আওয়ামী লীগ নেতৃবৃন্দ। এছাড়াও বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানান তারা।

অমৃতবাজার/পাভেল/মাসুদ