ঢাকা, শনিবার, ১৫ ডিসেম্বর ২০১৮ | ১ পৌষ ১৪২৫ বঙ্গাব্দ

এটি ‘স্টেট স্পন্সরড জাজমেন্ট’: রিজভী


অমৃতবাজার রিপোর্ট

প্রকাশিত: ০৪:৩৪ পিএম, ১১ অক্টোবর ২০১৮, বৃহস্পতিবার
এটি ‘স্টেট স্পন্সরড জাজমেন্ট’: রিজভী ফাইল ছবি

বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী বলেছেন, একুশে আগস্ট গ্রেনেড হামলা মামলায় বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড এবং বিএনপি নেতাদের বিরুদ্ধে দেওয়া রায় সরকারের কারসাজি। তিনি এই রায়কে ‘স্টেট স্পনসরড জাজমেন্ট’বা রাষ্ট্রীয় পৃষ্ঠপোষকতার বিচার বলে আখ্যা দেন।

বৃহস্পতিবার রাজধানীর নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এসব কথা বলেন।

রুহুল কবির রিজভী বলেন, বিএনপিকে পরিকল্পিতভাবে ধ্বংস করতেই গ্রেনেড হামলা মামলায় তারেক রহমানকে জড়ানো হয়েছে। তিনি এ ঘটনার সঙ্গে কোনোভাবেই জড়িত নন। সরকারের বিশেষ ব্যক্তির মনোবাঞ্চনা পূরণে এ রায় দেওয়া হয়েছে বলেও মন্তব্য করেন তিনি।

জোর করে তারেক রহমানের বিরুদ্ধে জবানবন্দি নেওয়া হয়েছে দাবি করে রিজভী বলেন, হাত-পায়ের নখ তুলে নিয়ে শারীরিক নির্যাতনের মাধ্যমে সম্পূরক জবানবন্দি নেয়া হয়েছিল।

তিনি বলেন, মুফতি হান্নানকে তারেকের বিরুদ্ধে সাক্ষ্য দিতে ৪০০ দিন রিমান্ডে রাখা হয়েছে। পরে তাকে দিয়ে জোর করে জবানবন্দি নেওয়া হয়েছে।

বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব বলেন, বিএনপিসহ বিরোধী দলগুলোকে নিশ্চিহ্ন করার জন্যই কারও ইচ্ছা পূরণে গতকাল এই রায় দেয়া হয়েছে। কিন্তু জনগণ এই রায় প্রত্যাখান করেছে। এই রায়ের প্রতিবাদে তাৎক্ষণিভাবে সারাদেশে বিক্ষোভ করেছে বিএনপিসহ সাধারণ জনগণ।

তিনি বলেন, সাবেক প্রধান বিচারপতি এস কে সিনহাকে বন্দুকের জোরে তাড়িয়ে দেয়া এবং সঠিক বিচার করতে গিয়ে জেলা জজ মোতাহার হোসেনকে দেশ ছাড়তে হয়েছে। যতদিন এই ভোটারবিহীন সরকার ক্ষমতায় থাকবে ততদিন কেউ ন্যায়বিচার পাবে না বলেই জনগণ মনে করে।

অমৃতবাজার/সুজন