ঢাকা, শনিবার, ১৮ আগস্ট ২০১৮ | ৩ ভাদ্র ১৪২৫ বঙ্গাব্দ

‘বিএনপি ক্ষমতায় এলে দেশ পাকিস্তানি ধারায় ফিরে যাবে’


অমৃতবাজার ডেস্ক

প্রকাশিত: ০৬:৩৭ পিএম, ১৪ জুলাই ২০১৮, শনিবার
‘বিএনপি ক্ষমতায় এলে দেশ পাকিস্তানি ধারায় ফিরে যাবে’ ফাইল ছবি

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, বিএনপি আরেকবার ক্ষমতায় এলে কী হবে বুঝতে পারেন? ২০০১ সালের চেয়েও ভয়াবহ পরিস্থিতি হবে। একদিনেই বাংলাদেশে রক্তের নদী হয়ে যাবে, লাশের পাহাড় হয়ে যাবে। একদিনেই বাংলাদেশ আবার পাকিস্তানি ধারায় প্রত্যাবর্তন করবে।

শনিবার রাজধানীর গুলিস্তানে মহানগর নাট্যমঞ্চের কাজী বশির মিলনায়তনে ‘মুক্তিযুদ্ধের চেতনা বাস্তবায়ন মঞ্চ’ আয়োজিত মুক্তিযোদ্ধা প্রতিনিধি সভায় ওবায়দুল কাদের এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, এবারের বিএনপি ২০০১ সালের চেয়েও ভয়াবহ। এই বিএনপি আমাদের বাড়িছাড়া করবে। মনে কী আছে গ্রামছাড়া আওয়ামী লীগ কর্মীরা বঙ্গবন্ধু এভিনিউয়ে বছরের পর বছর লঙ্গরখানায় দুঃসহ জীবন-যাপন করেছেন?

২০০১ সালে নির্বাচনের পরের ঘটনাগুলো স্মরণ করিয়ে দিয়ে ওবায়দুল কাদের বলেন, দুর্বিষহ জীবন-যাপন করেছেন এদেশের সংখ্যালঘুরা। মহিলাদের ধর্ষণ, ঘরে ঘরে অত্যাচার, পুকুরের মাছ বিষ দিয়ে মেরে ফেলেছে, বসতঘর আগুন দিয়ে পুড়িয়েছে। এই হচ্ছে বিএনপি। সেই ইতিহাস কী ভুলে গেছেন?

মুক্তিযোদ্ধাদের ঐক্যবদ্ধ থাকার আহ্বান জানিয়ে তিনি বলেন, মুক্তিযোদ্ধাদের বলছি, ২০০১ সাল মার্কা নির্বাচন যাতে না হতে পারে, আগুনসন্ত্রাসের চ্যালেঞ্জ মোকাবেলা করতে যাতে না হয় সেজন্য সব ষড়যন্ত্র ঠেকাতে হবে।

সভায় নৌ-পরিবহনমন্ত্রী শাজাহান খান মুক্তিযোদ্ধাদের পক্ষ থেকে ৬ দফা দাবি তুলে ধরেন। দাবির মধ্যে রয়েছে জামায়াত-শিবির, যুদ্ধাপরাধী ও স্বাধীনতাবিরোধীদের সন্তানদের যাতে সরকারি চাকরিতে নিয়োগ দেওয়া না হয়, সরকারি চাকুরেদের মধ্যে যারা মুক্তিযুদ্ধবিরোধী তৎপরতা চালাচ্ছে তাদের বিতাড়ণ, যুদ্ধাপরাধীদের স্থাবর-অস্থাবর সম্পত্তি এবং জামায়াত-শিবির পরিচালিত প্রতিষ্ঠান বাজেয়াপ্ত ইত্যাদি।

মুক্তিযোদ্ধা প্রতিনিধি সভায় সারাদেশ থেকে বিপুল সংখ্যক মুক্তিযোদ্ধা অংশ নেন। জাতীয় পতাকা উত্তোলন ও জাতীয় সঙ্গীতের মধ্যে দিয়ে সভার উদ্বোধন হয়। এতে আরো বক্তব্য রাখেন মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী আ ক ম মোজাম্মেল হক, জাসদের সভাপতি ও তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনু, ক্যাপ্টেন (অব.) এ বি তাজুল ইসলাম এমপি, মেজর জেনারেল (অব.) হেলাল মোর্শেদ খান, কবির আহমেদ খান, ইসমত কাদির গামা, সালাউদ্দিন আহমদে, মেজর (অব.) ওয়াকার হাসান বীরপ্রতীক, আবদুল মালেক মিয়া প্রমুখ।

অমৃতবাজার/সুজন