ঢাকা, সোমবার, ০৬ এপ্রিল ২০২০ | ২৩ চৈত্র ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় ফোর-জি নেটওয়ার্ক এর দুরবস্থা


অমৃতবাজার ডেস্ক

প্রকাশিত: ০১:৩২ পিএম, ২৮ জানুয়ারি ২০২০, মঙ্গলবার | আপডেট: ০১:৩৩ পিএম, ২৮ জানুয়ারি ২০২০, মঙ্গলবার
ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় ফোর-জি নেটওয়ার্ক এর দুরবস্থা ছবি- ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় ফোর-জি নেটওয়ার্ক এর দুরবস্থা

পেশাগত কারণে আমি থাকি ঢাকায়। তবে সপ্তাহান্তে পরিবারের কাছে যাই ব্রাহ্মণবাড়িয়ায়। এই একটি দিন যতোই ভাবি ফোন থেকে দূরে থাকবো, হয়ে উঠে না। রেলের টিকিট, সংবাদ, ব্যাংক ও টাকার লেনদেন সবই করি আমার স্মার্ট ফোনের অ্যাপস দিয়ে। আমি যেমন আমার ফোনের উপর এখন অনেকাংশেই নির্ভরশীল, তেমন আমার ফোন চলে ইন্টারনেটের ওপর ভর করে। 

ফোর-জি গতি সম্পন্ন আমার হ্যান্ডসেট ও সিমটি ঢাকাতে তার সর্বোচ্চ পারফর্মেন্স দেখায়। ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় এলেই আমি ও আমার কাজগুলো ঝিমিয়ে পড়ে। আমার স্মার্ট ফোনটিকে তখন ফিচার ফোন মনে হয়। ইন্টারনেটে গতি নেই একদম। প্রথমে ভাবতাম শুধু আমার গ্রামীণ নেটওয়ার্কই বুঝি এমন। কিন্তু বাংলালিংক নেটওয়ার্ক ব্যবহারকারী আমার স্ত্রীর সিম ফোর-জি করা। ওর ফোর-জি হ্যান্ড সেটেও ঠিক ওই রকম ধির গতির ইন্টারনেটই!

আজ সকালে আমার স্ত্রী উচ্ছ্বোসিত হয়ে কল দিল। বললো- সুখবর! আমি নড়েচড়ে বসে সুখবরটি জানতে চাইলাম। ও জানালো- `বাংলালিংক থেকে ম্যাসেজ করে জানিয়েছে আমাদের কাউতলি এলাকাটি ফোর-জি এর আওতায় এসেছে! এখন সুপার ফাস্ট নেট পাচ্ছি।`

এর মানে সারাদেশের বিভিন্ন অঞ্চল এখনো ফোর-জি এর আওতায়ই আসেনি! আমার গ্রামের বাড়ি বিজেশ্বর-এ কোনো ফোন কোম্পানির নেটওয়ার্কই ভালো কাজ করে না। ফোর-জি দূরের কথা, টু-জি স্পিড আছে কিনা সন্দেহ। কথা বলতে গেলে কিছুই বোঝার জো নেই! 

আবার শুনছি দেশে ফাইভ-জি আসছে! ফোর-জি যেখানে সারাদেশে এভেইলেবল নয়, সেখানে এসব মিছে স্বপ্ন দেখানোর মানে কি? 

`ডিজিটাল বাংলাদেশ` স্লোগান কি শুধু তিলোত্তমা ঢাকার জন্য? অথবা বিভাগীয় শহরগুলোর জন্যই প্রযোজ্য? জেলা শহরগুলো এভাবে উপেক্ষিতই থাকবে?

ওহ বলে রাখা ভালো, আমার ঢাকাস্থ কাঁঠালবাগান এর বাসায় কোন ফোন অপারেটর এর ইন্টারনেট গতিই টু-জির বেশি না। ঠিকঠাক কথা বলতে গেলেও বাসা থেকে বের হয়ে সড়কে নামতে হয়!

তাহলে প্রশ্ন থেকেই যায়, ডিজিটাল বাংলাদেশ কদ্দূর?

 

লেখক: মাহমুদুর রহমান, অনলাইন এক্টিভিস্ট

অমৃতবাজার/এমআর