ঢাকা, মঙ্গলবার, ২৫ জুন ২০১৯ | ১১ আষাঢ় ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

যশোর সাংবাদিকদের মারধর, বাড়িতে বোমা হামলা


অনলাইন ডেস্ক

প্রকাশিত: ০৩:৪৮ পিএম, ২৯ ডিসেম্বর ২০১৮, শনিবার | আপডেট: ০৫:২৫ পিএম, ২৯ ডিসেম্বর ২০১৮, শনিবার
যশোর সাংবাদিকদের মারধর, বাড়িতে বোমা হামলা

যশোরের শার্শা উপজেলায় দুই সাংবাদিককে পিটিয়ে জখম এবং আরেক সাংবাদিকের বাড়িতে বোমা হামলা চালিয়েছে দুর্বৃত্তরা। মারধরের শিকার দুই সাংবাদিক হলেন-বেনাপোলের এটিএন বাংলার প্রতিনিধি আহম্মদ আলী শাহিন (৪৩) এবং দৈনিক নয়াদিগন্ত পত্রিকার শার্শা প্রতিনিধি আবদুল মান্নানকে (৪৮) পিটিয়ে জখম ও দৈনিক লোকসমাজের প্রতিনিধি মনিরুল ইসলাম মনির বাড়িতে বোমা হামলা করেছে দুর্বৃত্তরা। গুরুতর আহত আহম্মদ আলী শাহিনকে যশোরে একটি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

আহমদ আলী শাহিনকে বৃহস্পতিবার রাতে নাভারনের সাতক্ষীরা মোড়ে তার বাড়ির গেটে ও আবদুল মান্নানকে শুক্রবার বিকালে সকালে শার্শা উপজেলার স্বরূপদাহ গ্রামে মারধর করা হয়।

এ ছাড়া শার্শা উপজেলার গিলাপোল গ্রামে মনিরুল ইসলাম মনির বাড়িতে শনিবার ভোররাতে বোমা হামলা চালানো হয়। তবে ওই হামলায় কেউ হতাহত হয়নি বলে মনিরুল জানান।

আহত শাহিন জানান, বৃহস্পতিবার রাত সাড়ে ৮টার সময় নাভারন মোড়ে নিজ বাড়ির গেটের সামনে দাঁড়িয়ে ছিলেন তিনি। এ সময় পেছন থেকে দুর্বৃত্তরা তার ওপর হামলা চালায়। দুর্বৃত্ত হকিস্টিক দিয়ে তাকে এলোপাতাড়ি পিটিয়ে জখম করে। তার চিৎকার শুনে আশপাশের লোকজন ছুটে এলে দুর্বৃত্তরা পালিয়ে যায়।

খবর পেয়ে বিজিবি ও পুলিশ সদস্যরা ঘটনাস্থলে ছুটে এসে শাহিনকে উদ্ধার করে চিকিৎসার জন্য শার্শা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেন। অবস্থার অবনতি হলে ওই রাতেই উন্নত চিকিৎসার জন্য যশোরের একটি ক্লিনিকে পাঠানো হয় শাহিনকে।

এদিকে শুক্রবার বিকালে সাংবাদিক আবদুল মান্নান বাড়ি থেকে সাইকেলযোগে শার্শাবাজারে আসার পথে সরূপদাহ গ্রামে একদল দুর্বৃত্ত তাকে পিটিয়ে আহত করে। মান্নানকে বাঁচাতে তার মামাতো ভাই এগিয়ে এলে তাকেও মারধর করা হয়।

বিষয়টি সহকারী রিটার্নিং অফিসার ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তাকে জানানো হয়েছে বলে জানান আক্রান্ত সাংবাদিক আবদুল মান্নান।
শার্শা থানার ওসি এম মশিউর রহমান জানান, এ ব্যাপারে থানায় কেউ কোনো অভিযোগ করেনি। অভিযোগ পেলে অবশ্যই আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হবে।

অমৃতবাজার/ইকরামুল