ঢাকা, মঙ্গলবার, ২৩ জুলাই ২০১৯ | ৮ শ্রাবণ ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

বইমেলায় কামরুন নাহার শীলার ‘লালবেজি’


কুবি প্রতিনিধি

প্রকাশিত: ১০:৫২ পিএম, ১১ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, সোমবার
বইমেলায় কামরুন নাহার শীলার ‘লালবেজি’
সমকালীন প্রেক্ষাপটে রচিত ‘দরজার ভিতর থেকে’, ‘কিডস জোন’, ‘ঠিকানা’, ‘অবগাহন’, ‘লালবেজি’ প্রভৃতি নানামুখী ও বহুরৈখিক গল্পের সংকলনে কথাসাহিত্যিক ও কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয় বাংলা বিভাগের সহকারী অধ্যাপক কামরুন নাহার শীলার গল্পগ্রন্থ ‘লালবেজি’ এসেছে এবারের বইমেলায়। 
 
‘লালবেজি’ বইটি প্রকাশ করেছে বাতিঘর। প্রচ্ছদ করেছে রাজীব দত্ত, বইটির মূল্য ১৬০ টাকা। বইটি পাওয়া যাবে অমর একুশে গ্রন্থমেলা-২০১৯’র বাতিঘরের স্টলে (১২০-১২১)। মেলার বাইরে বাতিঘরের ঢাকা, চট্টগ্রাম ও সিলেট বিপণনকেন্দ্রে এবং অনলাইনে রকমারি ডট কমেও পাওয়া যাবে বইটি। 
 
চলতি শতকের প্রথম দশকে আবির্ভূত নবীন প্রতিভাদীপ্ত গল্পকারদের একজন কামরুন নাহার শীলা। একনিষ্ঠভাবে গল্পচর্চায় নিমগ্ন থেকে তিনি গল্পে তুলে আনেন ব্যক্তিগত ও পারিপার্শ্বিক নানা অভিজ্ঞতার নির্যাস।
 
‘লালবেজি’র গল্পগুলোতে সংখ্যালঘু এক তরুণের অসহায়ত্ব ও মনস্তাত্ত্বিক সংকট, ভগ্ননীড় এক শিশুর ক্ষণিক সান্নিধ্যে পিতার সানন্দ বিষাদের অনিবর্চনীয় অনুভূতি, নিরুদ্দিষ্ট প্রেমিকের খোঁজে এক সরল নারীর দূরপাল্লায় পাড়ি দেওয়ার বিড়ম্বনা, উচ্চশিক্ষিত বেকারজীবনের হতাশা ও শূন্যতাবোধের ভিন্নতর ব্যঞ্জনা কিংবা রাজনৈতিক প্রতিহিংসার বলি সন্তানের জন্য এক মায়ের সংগুপ্ত হাহাকারের ব্যতিক্রমী প্রকাশ ইত্যাদি বহুরৈখিক অন্তর্বাস্তব ও বহির্বাস্তবের সামনে পাঠককে দাঁড় করিয়ে দেন শীলা।
 
অন্তর্নিহিত বাস্তবতায় লেখকের গল্প কখনও পাড়াগাঁয়ের মেদুর স্মৃতিতে মজ্জমান, কখনোবা শহুরে যান্ত্রিকতার চাপে ধূম্রধূসর। যেমন ঘটনামুখ্য নয় তাঁর গল্প, তেমনি প্রকরণক্লিষ্ট নয় তাঁর ভাষাও। 
 
কথাসাহিত্যিক কামরুন নাহার শীলা চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় থেকে বাংলা সাহিত্যে স্নাতক ও স্নাতকোত্তর সম্পন্ন করে বর্তমানে সহকারী অধ্যাপক হিসেবে কর্মরত আছেন কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ের বাংলা বিভাগে। লালবেজি তার প্রথম গল্পগ্রন্থ যেটি সারল্যের সাথে গভীরতার সাধনায় ও সরস গদ্যের কুশলতায় সাধুবাদযোগ্য।
 
অমৃতবাজার/মাহফুজ/রেজওয়ান