ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৫ এপ্রিল ২০১৯ | ১২ বৈশাখ ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

কোন রাশি কোন রাশির শত্রু?


অমৃতবাজার ডেস্ক

প্রকাশিত: ০৮:৩০ পিএম, ২৪ মার্চ ২০১৯, রোববার
কোন রাশি কোন রাশির শত্রু?

রাশি সম্পর্কিত বিষয়গুলো অনেকেই পড়তে পছন্দ করেন। এখানে সবসময়ই নতুন কিছু জানার থাকে। শুধু প্রেম নয়, বন্ধুত্ব, আত্মার সম্পর্ক বা শত্রুতার বিষয়গুলো রাশি জানায়।

প্রত্যেক রাশির লোকেরই কিছু আলাদা বৈশিষ্ট্য থাকে। কিছু রাশি রয়েছে যাদের মধ্যে ভাব-ভালোবাসা সবসময় বেশি হয়। আর কিছু রাশি রয়েছে যারা চিরদিনই একজন আরেকজনের শত্রু থেকে যায়।

রাশি অনুযায়ী কোন রাশি আপনার শত্রু,এ বিষয়ে জানিয়েছে জ্যোতিষশাস্ত্র বিষয়ক ওয়েবসাইট অ্যাসটোফেম।

মেষ ও মেষ

২১ মার্চ থেকে ২০ এপ্রিলের মধ্যে জন্ম নেওয়া ব্যক্তিদের সাধারণত মেষ রাশির জাতক বা জাতিকা হিসেবে ধরা হয়।মেষ রাশির বৈশিষ্ট্য সম্পন্ন ব্যক্তি আরেকজন মেষ রাশির ব্যক্তিকে সহ্য করতে পারে না। তারা একত্রিত হলে বেশিরভাগ ক্ষেত্রেই তর্ক জুড়ে দেয়।

কোনো ভুল হয়ে গেলে একজন মেষ রাশির ব্যক্তি আরেকজন মেষ রাশির ব্যক্তিকে শুধরে না দিয়ে ভুল নিয়ে বারবার কথা বলতে থাকে।  

মেষ ও তুলা

২৩ সেপ্টেম্বর থেকে ২২ অক্টোবরের মধ্যে জন্ম নেওয়া মানুষগুলো তুলা রাশির হয়।আর ২১ মার্চ থেকে ২০ এপ্রিলের মধ্যে যারা জন্ম নেয় তাদের মেষ রাশির ধরা হয়।

তুলা রাশির জাতক/জাতিকা সাধারণত মুক্তমনা ও স্বপ্নে বিভোর ব্যক্তিত্বের হয়। তবে তাদের আদর্শবাদী চরিত্র সবার সঙ্গে মিশে যেতে পারে না, বিশেষ করে মেষের সঙ্গে। জ্যোতিষশান্ত্র মতে, তুলা ও মেষ দুজনের মধ্যে বন্ধুত্ব হওয়া কঠিন। কারণ, দুজন দুই জগতের বাসিন্দা। এ ছাড়া তাদের জীবন চালানোর দৃষ্টিভঙ্গিও আলাদা।

বৃষ ও সিংহ

২১ এপ্রিল থেকে ২০ মে- এর মধ্যে যারা জন্ম নেয় তারা বৃষ রাশির মধ্যে পড়ে। আর ২১ জুলাই থেকে ২১ আগস্টে জন্ম নেওয়া মানুষরা সিংহ রাশির জাতক বা জাতিকা হয়।

জানেন কি অধিকাংশ সময়ই বৃষ ও সিংহ একসঙ্গে থাকলে ঝগড়া করতে থাকে এবং কোনো কিছুতেই সহমতে আসতে পারে না? এরাও অধিকাংশ সময় একজন আরেকজনের শত্রুতে পরিণত হয়।  

মিথুন ও মিথুন

২১ মে থেকে ২০ জুনের মধ্যে জন্ম নেওয়া ব্যক্তিদের মিথুন রাশির ধরা হয়।জ্যোতিষশাস্ত্র মতে, মিথুন রাশি মিথুন রাশির শত্রু। আশ্চর্য হচ্ছেন! তবে বিষয়টি কিন্তু ঘটে। আসলে একজন মিথুন রাশির বৈশিষ্ট্য সম্পন্ন ব্যক্তি আরেকজন মিথুন রাশির লোককে পছন্দ করে না। তাদের অবস্থা অনেকটা কুকুর–বেড়ালের মতো হয়। তারা সাধারণত ১০ মিনিটও একজন আরেকজনের সঙ্গ পছন্দ করে না।

কর্কট ও মীন

২১ জুন থেকে ২০ জুলাই যাদের জন্ম তারা কর্কট রাশির মধ্যে পড়ে। ১৯ ফেব্রুয়ারি থেকে ২০ মার্চে জন্মানো ব্যক্তিরা মীন রাশির হয়।

ককর্ট ও মীন একজন আরেকজনকে সহ্য করতে পারে না- কথাটি শুনে অবাক হবেন না। আসলে কর্কট ও মীন দুটি রাশির লোকই খুব স্পর্শকাতর। আর এটিই তাদের সমস্যার কারণ।

বৃশ্চিক ও কুম্ভ

২৩ অক্টোবর থেকে ২১ নভেম্বর পর্যন্ত জন্ম নেওয়া মানুষদের বৃশ্চিক রাশির ধরা হয়। কুম্ভ রাশির ব্যক্তিদের জন্ম হয় ২০ জানুয়ারি থেকে ১৮ ফেব্রুয়ারির মধ্যে।

বৃশ্চিকের বৈশিষ্ট্য আর কুম্ভের বৈশিষ্ট্য সম্পূর্ণ বিপরীত। বৃশ্চিক খুব প্রগাঢ় স্বভাবের হয়, আর সবকিছু নিয়ন্ত্রণে রাখতে চায়। অন্যদিকে কুম্ভ হলো আরামপ্রিয় রাশি। বৃশ্চিকের শক্তিশালী ব্যক্তিত্ব কুম্ভকে মৃদুভাবে দমন করে দেয়। আর এরা শত্রুতে পরিণত হয়।

অমৃতবাজার/পিকে