ঢাকা, সোমবার, ২১ অক্টোবর ২০১৯ | ৫ কার্তিক ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম নিয়ে সেলেনার সতর্কতা


অমৃতবাজার ডেস্ক

প্রকাশিত: ১০:৪৯ এএম, ১৮ মে ২০১৯, শনিবার
সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম নিয়ে সেলেনার সতর্কতা

অভিনেত্রী, গায়িকা সেলেনা গোমেজ বলেছেন, সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম তার প্রজন্মের জন্য ‘ভয়ানক’ হয়েছে। একই সঙ্গে সেলেনা সবাইকে তাদের সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ব্যবহারের সময়কে একটি নির্দিষ্ট সীমার মধ্যে রাখার আহ্বান জানিয়েছেন।

চলমান কান চলচ্চিত্র উৎসবে নিজের ছবির প্রচারণার সময় ২৬ বছর বয়সী সেলেনা এসব কথা বলেন। তার নতুন ছবি দ্য ডেড ডোন্ট ডাই।

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমের অনেক উপকারিতা আছে মেনে নিয়েই সেলেনা এর ক্ষতিকর দিক সম্পর্কে সবাইকে, বিশেষত তরুণদের সতর্ক করেছেন। ‘এটা খুবই উপকারী প্লাটফর্ম, কিন্তু এটা আমাকে আতঙ্কিত করে যখন দেখি ছেলেমেয়েরা আশপাশে কী ঘটছে, সেসব নিয়ে মোটেই সচেতন নয়। এটা খুবই স্বার্থপরতা; আবার স্বার্থপরতাও বলব না, এটা বরং ভীষণ বাজে এবং নিশ্চিতভাবেই বিপজ্জনক।’

দ্য ডেড ডোন্ট ডাই ছবিতে সেলেনা অভিনয় করেছেন ওয়াই-ফাই নেশাগ্রস্ত এক হিপস্টারের চরিত্রে। ছবিটি পরিচালনা করেছেন জিম জারমাস। ছবিটি মুক্তি পাবে ১৪ জুন।

ইনস্টাগ্রামে সেলেনার ১৫ কোটি ফলোয়ার আছে এবং তিনি ইনস্টাগ্রাম, টুইটারে ছবি ও বিভিন্ন মত প্রকাশ করেন। টুইটারে তার ফলোয়ার সংখ্যা প্রায় ছয় কোটি। তার কথায় তিনি এগুলো গঠনমূলক পদ্ধতিতে করেন। তিনি এক্ষেত্রে তার তরুণ ভক্তদের ব্যাপারেও সতর্ক থাকেন। ‘সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমের প্লাটফর্মটি পেয়ে আমি কৃতজ্ঞ, যেসব বিষয় নিয়ে আমি প্যাশনেট, সেগুলো সবার সঙ্গে ভাগ করে নিতে পারি। আমি অকারণ ছবি তুলি না। উদ্দেশ্য ছাড়া আমি ছবি পোস্ট করি না।

পরিচালক জারমাস সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ব্যবহারে সেলেনার পদ্ধতি, সতর্কতাকে প্রশংসা করেন। ‘সেলেনাকে অনেক মানুষ অনুসরণ করেন। সে একজন অসাধারণ মানুষ।’

ইনস্টাগ্রামে দুনিয়ায় যাদের সবচেয়ে বেশি ফলোয়ার আছে, তার মধ্যে সেলেনা তৃতীয়। তাই তার মুখ থেকেই সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমের ব্যবহার নিয়ে সতর্ক উচ্চারণকে পর্যবেক্ষকরা গুরুত্ব দিয়ে দেখছেন।

সূত্র: ইন্ডিওয়্যার

অমৃতবাজার/আরএইচ