ঢাকা, বুধবার, ১৮ সেপ্টেম্বর ২০১৯ | ৩ আশ্বিন ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

ঢাকাই সিনেমাতে ইবি শিক্ষার্থী আদনান চৌধুরীর অভিষেক


অনি আতিকুর রহমান, ইবি

প্রকাশিত: ০৫:৪৩ পিএম, ১৪ মে ২০১৯, মঙ্গলবার | আপডেট: ০৫:৫৮ পিএম, ১৪ মে ২০১৯, মঙ্গলবার
ঢাকাই সিনেমাতে ইবি শিক্ষার্থী আদনান চৌধুরীর অভিষেক ঢাকাই সিনেমার নবাগত খলনায়ক ইবি শিক্ষার্থী আদনান হোসেন চৌধুরী। ছবি : অমৃতবাজার

ঢাকাই সিনেমায় অভিষেক হচ্ছে ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের (ইবি) শিক্ষার্থী আদনান হোসেন চৌধুরীর। পরিচালক রাজু চৌধুরির স্বপ্ন নামের একটি সিনেমায় চুক্তিবদ্ধ হয়েছেন তিনি। সিনেমাটিতে আদনান চৌধুরিকে খলনায়ক চরিত্রে দেখা যাবে। ইতোমধ্যে সিনেমার শুটিং শুরু হয়েছে।

সিনেমাতে আরও অভিনয় করেছেন নবাগত নায়ক সিয়াম খান রাতুল, নবাগত নায়িকা ওয়াসফিয়া তাসনিম উষ্ণ ও নওরিন চৌধুরী এবং খলনায়ক চরিত্রে চমক হিসেবে থাকছেন এক দশক থিয়েটার করে আসা আদনান হোসেন চৌধুরী। এছাড়াও আলেকজান্ডার বো, আজিজুল হাকিম সীমান্ত, আমির সিরাজী, রেবেকা রউফ, সোমা আকাশ প্রমুখ সিনেমাটিতে অভিনয় করেছেন।

আদনান চৌধুরী সম্পর্কে: আদনান চৌধুরীর বাড়ি রংপুর সদরের মাহিগঞ্জে। স্কুল ও কলেজ লেভেল বিকেএসপিতে শেষ করে বর্তমানে কুষ্টিয়া ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের লোক প্রশাসন বিভাগে স্নাতকোত্তর করছেন। পড়ালেখা ও খেলাধুলার পাশাপাশি ২০০৫ সাল থেকে থিয়েটারে অভিনয় করেছেন। নিজ জেলা রংপুরের শিখা সংসদরঙ্গনাট্য’র সাথে জড়িত ছিলেন। ২০১৩ ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি হওয়ার পর যোগ দেন বিশ্ববিদ্যালয় থিয়েটারে (বিথি)।

অভিনেতা ও সহকারী পরিচালক হিসেবে তিনি ইতোমধ্যে কাজ করেছেন আলী ফিদা একরাম তোজো, ভিকি জাহেদ, দীপঙ্কর দীপন, অনিমেষ আইচের সাথে। অভিনয় করেছেন ধারাবাহিক নাটক, শর্টফ্লিম, বিজ্ঞাপন ও মিউজিক ভিডিওতে। ছোটবেলায় আবৃত্তি করতেন। বিভিন্ন প্রতিযোগীতায় অংশগ্রহণ করে অভিনয় ও আবৃত্তি করে সুনাম অর্জন করেছেন। এছাড়াও তিনি ফুটবলার হিসাবে অনূর্ধ্ব-১৭ জাতীয় দলের হয়ে দিল্লিতে সুব্রত কাপে প্রতিনিধিত্ব করেন।

আদনানের পছন্দের অভিনেতা হুমায়ুন ফরিদী ও নাওয়াজ উদ্দিন সিদ্দিকী। তিনি বলেন, ছোটবেলা থেকেই বাবা আমাকে ফ্ল্যাক্সিবিলিটি দিয়েছেন। সবার কাছে দোয়া চাই যেন অভিনয়টা সততা এবং ব্যক্তিত্বের সাথে শুরু করতে পারি। পরিচালক রাজু চৌধুরীর কাছে আমি কৃতজ্ঞ কারণ, তিনি আমাকে এত বড় সুযোগ করে দিয়েছেন। আমার এই পর্যন্ত আসার পথে শুভ ভাই, আশিষ দা, বন্ধু তাজ, আশ্বাস, মিজান এবং তকী’র অবদান রয়েছে তাদেরও ধন্যবাদ।

প্রসঙ্গত, পরিচালক হিসেবে রাজু চৌধুরীর এটি ৪৯ তম সিনেমা। এর আগে দর্শকপ্রিয়ইঞ্চি ইঞ্চি প্রেমসহ ৪৮টি সিনেমা পরিচালনা করেছেন তিনি। 

অমৃতবাজার/অনি