ঢাকা, শনিবার, ২৪ আগস্ট ২০১৯ | ৮ ভাদ্র ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

বিয়ের গাড়িতে ট্রেনের ধাক্কা, মৃতের সংখ্যা বেড়ে ১০


অমৃতবাজার রিপোর্ট

প্রকাশিত: ১২:২২ পিএম, ১৬ জুলাই ২০১৯, মঙ্গলবার
বিয়ের গাড়িতে ট্রেনের ধাক্কা, মৃতের সংখ্যা বেড়ে ১০

 

সিরাজগঞ্জের উল্লাপাড়ায় বিয়ের যাত্রী বহনকারী মাইক্রোবাসে ট্রেনের ধাক্কায় নিহতের সংখ্যা বেড়ে ১০ জনে দাঁড়িয়েছে। সোমবার বিকালে ঢাকা-রাজশাহী রেলপথের পঞ্চক্রোশী ইউপির শাহী কোলায় এ দুর্ঘটনা ঘটে।

নিহতরা হলেন- নববিবাহিত বর সদর উপজেলার কান্দাপাড়া গ্রামের আলতাফ হোসেনের ছেলে রাজন (৩২), তার সদ্যবিবাহিতা স্ত্রী উল্লাপাড়ার এনায়েতপুর গুচ্ছগ্রামের মৃত গফুর শেখের মেয়ে সুমাইয়া (২১), একই গ্রামের আশরাফ আলীর স্ত্রী মমতা (৩৫), সদর উপজেলার রামগাঁতী গ্রামের মৃত আব্দুছ ছালামের ছেলে শফিউল (১৯), একই এলাকার মৃত মশিউর রহমানের ছেলে আব্দুস সামাদ (৪৫), একই গ্রামের শিশু আলিফ (৯), সয়দাবাদ এলাকার নূর আলম (৩৫), সিরাজগঞ্জ পৌর এলাকার দিয়ার ধানগড়া মহল্লার আলতাফ হোসেনের ছেলে শরীফ (৩২), রায়গঞ্জ উপজেলার কৃষ্ণদিয়ার গ্রামের আলম শেখের ছেলে খোকন (২৪) এবং মাইক্রোবাস চালক কামারখন্দ উপজেলার জামতৈল গ্রামের এলাহী বক্সের ছেলে স্বাধীন মিয়া (৫৫)।

উল্লাপাড়া ফায়ার সার্ভিসের উপ-সহকারী পরিচালক আব্দুল হামিদ জানান, বরযাত্রীবাহী একটি মাইক্রোবাস উল্লাপাড়ার গুচ্ছ গ্রামে বিয়ে শেষে সিরাজগঞ্জের কান্দাপাড়ায় আসার পথে রেলক্রসিং পার হচ্ছিল। এসময় রাজশাহী থেকে ঢাকাগামী পদ্মা এক্সপ্রেস ট্রেনটি মাইক্রোবাসকে ধাক্কা দেয়। এতে মাইক্রোবাসটি দুমড়ে-মুচড়ে যায়। প্রায় ২০০ গজ দূরে গিয়ে ট্রেনটি থামার পর মাইক্রোবাস থেকে হতাহতদের উদ্ধার করা হয়। দুর্ঘটনায় বর-কনেসহ ৯ যাত্রী ঘটনাস্থলেই মারা যান। কয়েকজনকে আহতাবস্থায় উদ্ধার করে হাসপাতালে পাঠায় স্থানীয়রা। এদের মধ্যে সিরাজগঞ্জ সদর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় আরও একজনের মৃত্যু হয়।

অমৃতবাজার/এএস