ঢাকা, শনিবার, ২১ অক্টোবর ২০১৭ | ৫ কার্তিক ১৪২৪ বঙ্গাব্দ

পলাশে চায়না প্রজেক্টের লকার ভেঙে ৫৩ লাখ টাকা লুট


নরসিংদী প্রতিনিধি

প্রকাশিত: ০৩:৩৫ পিএম, ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৭, শনিবার
পলাশে চায়না প্রজেক্টের লকার ভেঙে ৫৩ লাখ টাকা লুট

নরসিংদীর পলাশ উপজেলার ঘোড়াশাল তাপ বিদ্যুৎ কেন্দ্রের ৭ নং ইউনিটের একটি চায়না প্রজেক্টের কর্মচারীদের ৫৩ লাখ টাকা লুটের ঘটনা ঘটেছে। এ ঘটনায় পলাশ থানা পুলিশ ১২ লাখ সাতষট্টি হাজার টাকাসহ আল-আমিন (২৫) নামে ওই প্রজেক্টের এক নিরাপত্তা প্রহরীকে আটক করেছে। আটককৃত আল-আমিন গাজীপুরের কালীগঞ্জ উপজেলার বাহাদুরসাটি গ্রামের হান্নান মিয়ার ছেলে।

পুলিশ জানায়, গত বৃহস্পতিবার রাতে বিদ্যুৎ কেন্দ্রের ৭ নং ইউনিটের একটি চায়না প্রজেক্টের লকার ভেঙে ৫৩ লাখ টাকা লুটের ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় শুক্রবার ওই প্রজেক্টের ম্যানেজার মি. মার্টিন টাকা লুটের ঘটনার সাথে জড়িত সন্দেহে প্রজেক্টের নিরাপত্তা প্রহরী আল-আমিনের বিরুদ্ধে থানায় অভিযোগ দায়ের করেন।

অভিযোগের ভিত্তিত্বে শুক্রবার রাতে পলাশ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবুল কালাম আজাদ, পুলিশ পরিদর্শক গোলাম মোস্তফা, এসআই মীর সোহেল রানা ও সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে নিরাপত্তা প্রহরী আল-আমিনের গ্রামের বাড়িতে অভিযান চালায়। এসময় তার ঘরের বিভিন্ন স্থানে তল্লাশী চালিয়ে নগদ ১২ লাখ সাতষট্টি হাজার টাকা উদ্ধার করে।

এ ব্যাপারে পলাশ থানার ওসি আবুল কালাম আজাদ জানান, আল-আমিনকে আটকের পর প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে তার সাথে ওই প্রজেক্টের আলম নামের এক ড্রাইভারের নাম জানা গেছে। বাকী টাকাগুলো তার কাছে থাকতে পারে বলে ধারণা করা হচ্ছে। ঘটনার পর থেকে ড্রাইভার আলম পলাতক রয়েছে। তাকে আটকের অভিযান চলছে।

অমৃতবাজার/জাহিদ/সাইফুল

Loading...