ঢাকা, সোমবার, ২৪ জুলাই ২০১৭ | ৮ শ্রাবণ ১৪২৪ বঙ্গাব্দ

বাগেরহাটে মেয়েকে উত্যক্তর প্রতিবাদ করায় বাবার ওপর হামলা


বাগেরহাট প্রতিনিধি

প্রকাশিত: ০৮:৪৮ পিএম, ১৯ মে ২০১৭, শুক্রবার | আপডেট: ১০:২৪ পিএম, ১৯ মে ২০১৭, শুক্রবার
বাগেরহাটে মেয়েকে উত্যক্তর প্রতিবাদ করায় বাবার ওপর হামলা

বাগেরহাটের চিতলমারীতে উত্যক্তের দায়ে সাজাপ্রাপ্ত আসামী জামিনে ছাড়া পেয়ে কলেজ ছাত্রীর বাবাকে কুপিয়ে আহতের ঘটনায় মামলার এজাহার নামীয় আসামী বাবু শেখ নামে একজনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। শুক্রবার দুপুরে চিতলমারী উপজেলার চিংগুড়ি এলাকা থেকে এজাহার নামীয় আসামী বাবু শেখ (২৮) কে গ্রেপ্তার  করে। সে মৈজোড়া গ্রামের আবুল কালাম শেখের ছেল।

এদিকে  বৃহস্পতিবার রাতে বাবা দবির উদ্দিন শেখের ওপর হামলার ঘটনায় কলেজ পড়–য়া মেয়ে বাদি হয়ে হামলার নায়ক মুজিবরকে প্রধান করে ১৬ জনকে আসামী করে চিতলমারী থানায় এই মামলা দায়ের করে।

বাগেরহাট পুলিশ সুপার পঙ্কজ চন্দ্র রায় বলেন, বাগেরহাটের চিতলমারীতে কলেজ ছাত্রীর বাবা দবির উদ্দিন শেখের ওপর হামলায় ঘটনায় মামলা দায়ের করা হয়েছে। মামলার এজাহার নামীয় আসামী বাবু শেখ নামে একজনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। অন্য আসামীদের আটকের জন্য পুলিশী অভিযান অব্যাহত রয়েছে। এ ঘটনায় জড়িত কাউকে ছাড় দেয়া হবে না।

প্রসঙ্গত, চিতলমারী উপজেলার বড়বাড়িয়া ইউনিয়নের মইজোড়া গ্রামের দবির উদ্দিন শেখের কলেজ পড়ুয়া মেয়েকে একই গ্রামের মুজিবর শেখ নামে এক যুবক কলেজে যাওয়া-আসার পথে প্রায়ই উত্যক্ত করত। দবির উদ্দিন মেয়েকে উত্যক্তকারীর হাত থেকে রক্ষা করতে প্রশাসনের কাছে মুজিবরের বিরুদ্ধে লিখিত অভিযোগ দেন। প্রশাসন ওই অভিযোগ পেয়ে গত ১৭ এপ্রিল ভ্রাম্যমাণ আদালত বসিয়ে মুজিবরকে তিন মাসের বিনাশ্রম কারাদন্ড দেন।

তিনদিন আগে মুজিবর জামিনে বেরিয়ে আসেন। বৃহষ্পতিবার সকালে মুজিবর শেখ ১৪-১৫ জনকে সঙ্গে নিয়ে লাঠিসোটা ও ধারালো অস্ত্র দিয়ে দবির উদ্দিনকে এলোপাথাড়ি পিটিয়ে ও কুপিয়ে গুরুতর জখম করে পালিয়ে যায়। গুরুতর অবস্থায় তাকে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

অমৃতবাজার/ইমরুল/ইকরামুল  

Loading...