ঢাকা, শুক্রবার, ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২০ | ১৫ ফাল্গুন ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

প্রধানমন্ত্রীকে ছাত্রলীগের কারণেই গদি ছাড়তে হবে: ভিপি নুর


অমৃতবাজার রিপোর্ট

প্রকাশিত: ০৯:৪৩ পিএম, ২৩ জানুয়ারি ২০২০, বৃহস্পতিবার
প্রধানমন্ত্রীকে ছাত্রলীগের কারণেই গদি ছাড়তে হবে: ভিপি নুর ডাকসু ভিপি নুরুল হক নুর। ছবি- সংগৃহীত।

ছাত্রলীগকে বেপরোয়া ও লাগামহীন উল্লেখ করে তাদের নিয়ন্ত্রণ করার জন্য প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার প্রতি আহ্বান জানান ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদের (ডাকসু) সহসভাপতি নুরুল হক নুর। একইসঙ্গে ছাত্রলীগকে নিয়ন্ত্রণ করতে না পারলে প্রধানমন্ত্রীকে ক্ষমতা ছাড়তে হবে বলে হুঁশিয়ারি দেন তিনি

বৃহস্পতিবার (২৩ জানুয়ারি) দুপুরে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের রাজু ভাস্কর্যের সামনে এক বিক্ষোভ সমাবেশে ডাকসু ভিপি নুরুল হক ছাত্রলীগের ব্যাপক সমালোচনা করেন৷

প্রধানমন্ত্রীকে ছাত্রলীগের ব্যাপারে সতর্ক করে নুরু বলেন, `ছাত্রলীগকে দিয়ে দুঃশাসন ও নির্যাতনের বিরুদ্ধে গণজাগরণ ও গণসচেতনতাকে দাবিয়ে রাখা যাবে না। ছাত্রলীগকে নিয়ন্ত্রণ করতে পারলে আপনাদের কপাল ভালো, নইলে প্রধানমন্ত্রীকে ছাত্রলীগের কারণেই গদি ছাড়তে হবে। সময় থাকতে ছাত্রলীগের বেপরোয়া ও লাগামহীন গতি টেনে ধরা উচিত।`

গত মঙ্গলবার রাতে বিশ্ববিদ্যালয়ের শহীদ সার্জেন্ট জহুরুল হক হলের চার ছাত্রকে রাতভর নির্যাতনের প্রতিবাদে প্রক্টরের পদত্যাগসহ চার দফা দাবি এবং ২০১৮ সালের ২৩ জানুয়ারি নিপীড়নবিরোধী শিক্ষার্থীদের ওপর ছাত্রলীগের হামলার দুই বছর পূর্তি স্মরণে ১২ ছাত্রসংগঠনের জোট সন্ত্রাসবিরোধী ছাত্রঐক্যের ব্যানারে ক্যাম্পাসে বিক্ষোভ মিছিলের আগে এই সমাবেশ করা হয়৷

ঢাবি প্রশাসনের দিকে আঙুল তুলে এসময় ডাকসু ভিপি অভিযোগ করেন, `বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন ছাত্রলীগের অপকর্মের সহযোগীর ভূমিকা পালন করে৷ হলগুলো থেকে অছাত্র-বহিরাগত উচ্ছেদে দীর্ঘদিন প্রশাসনকে চিঠি দিয়েছি, আলোচনা করেছি৷ কিন্তু আজ পর্যন্ত প্রশাসন কিছুই করেনি৷`

নুর আরও বলেন, অসংখ্য ঘটনা ঘটেছে৷ ঘটনা ঘটার পর গণমাধ্যমসহ সর্বত্র আলোচনা তৈরি হয়, প্রশাসন লোকদেখানো তদন্ত কমিটি করে, সেই তদন্ত বেশির ভাগ ক্ষেত্রেই আলোর মুখ দেখে না৷ ছাত্রলীগ বিশ্ববিদ্যালয়ের হলগুলোতে দাসপ্রথা কায়েম করেছে৷ ছাত্রলীগের প্রোগ্রাম করলে হলে থাকা যায়, প্রোগ্রাম না করলে থাকা যায় না- এই দাসপ্রথা সরকার পরিবর্তন হলেও নতুন যারা আসবে তাদের ছাত্রসংগঠনও হয়তো চালু রাখবে৷

সমাজতান্ত্রিক ছাত্রফ্রন্টের (মার্কসবাদী) ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় শাখার সভাপতি সালমান সিদ্দিকীর সঞ্চালনায় সমাবেশে ছাত্র ইউনিয়নের কেন্দ্রীয় সভাপতি মেহেদী হাসান নোবেল, সমাজতান্ত্রিক ছাত্রফ্রন্টের সাধারণ সম্পাদক নাসির উদ্দীন প্রিন্সসহ সন্ত্রাসবিরোধী ছাত্রঐক্যভুক্ত বিভিন্ন সংগঠনের নেতারা উপস্থিত ছিলেন৷ সমাবেশের পর ক্যাম্পাসে বিক্ষোভ মিছিল বের করা হয়৷

অমৃতবাজার/এসএইচএম