ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১২ ডিসেম্বর ২০১৯ | ২৮ অগ্রহায়ণ ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

নোবিপ্রবি`তে ভর্তি সংক্রান্ত বিস্তারিত তথ্য


নোবিপ্রবি প্রতিনিধি

প্রকাশিত: ১২:২০ এএম, ১৩ নভেম্বর ২০১৯, বুধবার | আপডেট: ১২:২১ এএম, ১৩ নভেম্বর ২০১৯, বুধবার
নোবিপ্রবি`তে ভর্তি সংক্রান্ত বিস্তারিত তথ্য

নোয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (নোবিপ্রবি) ২০১৯-২০ শিক্ষাবর্ষের স্নাতক (সম্মান) শ্রেণিতে মেধাতালিকা ও কোটায় উর্ত্তীণ শিক্ষার্থীদের ভর্তি আগামী ২৪ নভেম্বর থেকে শুরু হবে। যা চলবে আগামী ১ ডিসেম্বর পর্যন্ত।

মঙ্গলবার (১২ নভেম্বর) বিশ্ববিদ্যালয় রেজিস্ট্রার অধ্যাপক মো. মমিনুল হক স্বাক্ষরিত এক প্রেস রিলিজে এ তথ্য জানানো হয়।

প্রেস রিলিজে জানানো হয়, মেধাতালিকায় উত্তীর্ণ শিক্ষার্থীদের সাক্ষাৎকার, বিষয় নির্বাচন ও ভর্তি কার্যক্রম নিম্নোক্ত সময়সূচী অনুযায়ী অনুষ্ঠিত হবে। ‘এ’ ইউনিটে ২৪ নভেম্বর (১-৭০১); ‘বি’ ইউনিটে ২৫ নভেম্বর (১-৪০১); ‘সি’ ইউনিটে ২৬ নভেম্বর (১-৭০১); ‘ডি’ ইউনিটে ২৭ নভেম্বর (বিজ্ঞান ১-৫০১) (ব্যবসা ১-২০১)(মানবিক ১-১০১) এবং ‘ই’ ও ‘এফ’ ইউনিটে ২৮ নভেম্বর (ই ১-২৫১)(এফ ১-২০১) ভর্তি কার্যক্রম অনুষ্ঠিত হবে। এবং সকল কোটা থাকা শিক্ষার্থীদের ভর্তি কার্যক্রম অনুষ্ঠিত হবে ১ ডিসেম্বর তারিখে।

ভর্তির জন্য প্রয়োজনীয় কাগজপত্র ও নির্দেশিকা

১. মেধাতালিকা থেকে ভর্তির অনুমতি প্রাপ্ত ‘এ’, ‘বি’ ও ‘সি’ ইউনিটের উত্তীর্ণ প্রার্থীদের ২৪ নভেম্বর থেকে ২৭ নভেম্বর পর্যন্ত এবং ‘ডি’, ‘ই’ ও ‘এফ’ ইউনিটের প্রার্থীদের ২৭ নভেম্বর তারিখ থেকে ১ ডিসেম্বর তারিখের মধ্যে অবশ্যই ভর্তি হতে হবে।

২. মুক্তিযোদ্ধা, উপজাতি ও অন্যান্য কোটা থেকে ভর্তির অনুমতি প্রাপ্ত প্রার্থীদের ২ ডিসেম্বর ২০১৯ তারিখের মধ্যে অবশ্যই ভর্তি হতে হবে।

৩. এসএসসি ও এইচএসসির মূল মার্কশিট এবং প্রত্যেকটির একটি করে সত্যায়িত কপি অবশ্যই সঙ্গে আনতে হবে।

৪. বিশ্ববিদ্যালয় ওয়েবসাইট থেকে ডাউনলোডকৃত প্রবেশপত্রের (ভর্তি পরীক্ষার সময় কক্ষ পরিদর্শক কর্তৃক স্বাক্ষরিত) কপি।

৫. ইউনিট ভিত্তিক ‘বিষয় নির্বাচনী ফরম’ (চয়েস ফরম) অনলাইন থেকে সংগ্রহ ও পূরণ করে প্রিন্ট কপি সঙ্গে নিয়ে আসতে হবে।

৬. তিন কপি পাসপোর্ট সাইজের রঙিন ছবি।

৭. নাগরিকত্ব সনদ/জন্ম নিবন্ধন সনদ/পাসপোর্টের সত্যায়িত কপি।

৮. মুক্তিযোদ্ধা কোটায় ভর্তিচ্ছু প্রার্থীদের পিতা-মাতার অনুকুলে সরকার কর্তৃক ইস্যুকৃত মুক্তিযোদ্ধা সার্টিফিকেট এবং প্রয়োজনে দাদা-দাদী, নানা-নানীর সম্পর্কের বিষয় নিশ্চিত করার জন্য ইউনিয়ন পরিষদ/পৌরসভা/সিটি কর্পোরেশন কর্তৃক প্রদত্ত এবং জেলা/উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ড কাউন্সিল কর্তৃক প্রত্যায়িত পিতা-মাতার ওয়ারিশ সনদ, জাতীয় পরিচয়পত্রের মূল কপি এবং সত্যায়িত কপি।

৯. ক্ষুদ্র নৃগোষ্ঠি (উপজাতি) প্রার্থীদের ক্ষেত্রে উপজাতি ভিত্তিক প্রত্যয়ন পত্রের মূল কপি ও সত্যায়িত কপি।

১০. হরিজন/দলিত সম্প্রদায়, প্রতিবন্ধী (দৃষ্টি, বাক ও শ্রবণ) সহ খেলোয়াড় (শুধুমাত্র বাংলাদেশ ক্রীড়া শিক্ষা প্রতিষ্ঠান থেকে এইচএসসি পরীক্ষায় উত্তীর্ণ শিক্ষার্থীদের) কোটায় ভর্তির অনুমতি প্রাপ্ত প্রার্থীদের ভর্তির সময় যথাযথ প্রত্যয়নপত্র ও সনদপত্রের মূল কপি এবং সত্যায়িত কপি আনতে হবে।

১১. প্রথম টার্মের ক্রেডিট আওয়ার ফি সহ অন্যান্য ফি-চার্জ বাবদ সকল গ্রুপের জন্য সর্বসাকুল্যে ১৬,০০০ (ষোল হাজার) টাকা ভর্তি হওয়ার জন্য সঙ্গে আনতে হবে। উপরে উল্লেখিত কাগজপত্র ব্যতিত কোন শিক্ষার্থীকে ভর্তির অনুমতি দেওয়া হবে না।

১২. ভর্তি ফি অগ্রণী ব্যাংক লি. নোবিপ্রবি শাখা, অফিস চলাকালীন সময় হিসাব নম্বর: ০২০০০০৫৩২৬৫৪৪ এ জমা দিয়ে ভর্তি হবে।

উল্লেখ্য, মুক্তিযোদ্ধা, উপজাতি এবং অন্যান্য (হরিজন/দলিত সম্প্রদায়, প্রতিবন্ধী ও খেলোয়াড়) কোটায় ভর্তিকৃত শিক্ষার্থীদের ভর্তি পরবর্তী সনদ নিরীক্ষণ করা হবে এবং নিরীক্ষণে কোনো শিক্ষার্থীর সনদ সঠিক প্রমাণিত না হলে তার ভর্তি বাতিল করা হবে

অমৃতবাজার/হাসিব/এএস