ঢাকা, শুক্রবার, ২৭ এপ্রিল ২০১৮ | ১৪ বৈশাখ ১৪২৫ বঙ্গাব্দ

‘ঘুম’ বিষয়ে জনসচেতনতার উদ্দেশ্যে ইবিতে ‘কলিং বেল’র যাত্রা শুরু


ইবি প্রতিনিধি

প্রকাশিত: ০৯:২৮ পিএম, ২০ মার্চ ২০১৮, মঙ্গলবার | আপডেট: ০৯:২৯ পিএম, ২০ মার্চ ২০১৮, মঙ্গলবার
‘ঘুম’ বিষয়ে জনসচেতনতার উদ্দেশ্যে ইবিতে ‘কলিং বেল’র যাত্রা শুরু

‘বিট দ্যা আউল টু বি দ্যা সান’ স্লোগানকে সামনে রেখে ‘ঘুম’ বিষয়ক সচেতনতা সৃষ্টির লক্ষ্যে ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ে যাত্রা শুরু করেছে টিম ‘কলিং বেল’। ‘ব্রিটিশ কাউন্সিল’ ও ‘ড্রেমোক্রসি ওয়াচ’র পৃষ্টপোষকতায় ৪ দিনব্যাপি প্রশিক্ষণ গ্রহণ শেষে মঙ্গলবার র‌্যালি ও আলোচনা অনুষ্ঠানের মাধ্যমে আনুষ্ঠানিক যাত্রা শুরু করে তারা। জানা যায়, এদিন বেলা ১২টার দিকে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন ভবন থেকে একটি র‌্যালি বের হয়। র‌্যালিটি ক্যাম্পাসের গুরুত্বপূর্ণ সড়কসমূহ প্রদক্ষিণ করে ‘মৃত্যুঞ্জয়ী মুজিব’ চত্ত্বরে এসে ফটোসেশনে মিলিত হয়। পরে সেখান থেকে পূনরায় র‌্যালিটি ডায়না চত্ত্বরে এসে এক আলোচনা অনুষ্ঠানে মিলিত হয়।

এ সময় র‌্যালিতে যোগ দেন ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর অধ্যাপক ড. মাহবুবর রহমান। পরে ‘কলিং বেল’ টিমের সমন্বয়ক তারিক আল সাকিবের সঞ্চলনায় আলোচনা সভায় বক্তব্য প্রদান করেন বিশ্ববিদ্যালয়ের সেচ্ছাসেবী সংগঠন ক্যাপ’র কুষ্টিয়া জোনের সভাপতি আব্দুল্লাহ আল মাহদী, তারুণ্য’র প্রতিনিধি ওয়াহেদ আলী, ‘কলিং বেল’ টিমের সদস্য শেখ আরাফাত রহমান, শাখাওয়াত শাহরিয়ার স্বাক্ষর, মোমিনুল ইসলাম প্রমূখ।

অনুষ্ঠানে বক্তারা অধিক রাত্রী জাগরণের কুফল বর্ণনা করেন এবং উক্ত কারণে বৈশ্বিক প্রেক্ষিতে সৃষ্ট মারাত্মক রোগসমূহের একটি পরিসংখ্যান তুলে ধরেন। ‘কলিং বেল’ টিমের সমন্বয়ক তারিক আল সাকিব বলেন, ‘গত ১থেকে ৪ মার্চ ‘ব্রিটিশ কাউন্সিল’ ও ‘ড্রেমোক্রসি ওয়াচ’র পৃষ্টপোষকতায় ৪ দিনব্যাপি প্রশিক্ষণ গ্রহণ শেষে আমরা একটি প্রজেক্ট হাতে নিই। প্রজেক্টটি ছিল মূলত ‘রাতে ঘুম দিনে কাজ’। অর্থ্যাৎ অধিক রাত জেগে কাজ করার ফলে আমাদের যে শারিরীক ও মানসিক ক্ষতি হচ্ছে সে বিষয়ে সচেতন করার লক্ষ্যেই আমাদের এই যাত্রা।’

অমৃতবাজার/অনি/ইকরামুল