ঢাকা, মঙ্গলবার, ১৯ নভেম্বর ২০১৯ | ৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

দীর্ঘমেয়াদী আঞ্চলিক লাভে জোর দেওয়ার আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর


অমৃতবাজার রিপোর্ট

প্রকাশিত: ০৮:৪৮ পিএম, ০৪ অক্টোবর ২০১৯, শুক্রবার | আপডেট: ০৯:০৯ পিএম, ০৪ অক্টোবর ২০১৯, শুক্রবার
দীর্ঘমেয়াদী আঞ্চলিক লাভে জোর দেওয়ার আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর

 

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, আঞ্চলিক ভূ-রাজনৈতিক বাস্তবতা মোকাবেলায় মৈত্রী ও সহযোগিতার উপর জোর দিতে হবে। স্বল্পমেয়াদী লাভের জন্য দীর্ঘমেয়াদী স্বার্থ বিসর্জন দেওয়া উচিত নয়।

শুক্রবার নয়া দিল্লিতে ইন্ডিয়া ইকোনমিক ফোরামের সমাপনী পে্‌লনারি অধিবেশনে কো-চেয়ার হিসেবে বক্তব্যে তিনি এ মন্তব্য করেন।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, দক্ষিণ এশিয়াকে অবশ্যই সংযুক্ত, বন্ধুসুলভ ও প্রতিযোগিতাসক্ষম অঞ্চল হিসেবে গড়ে উঠতে হবে, যা অন্য অঞ্চলের সঙ্গে সেতুবন্ধনে সদা প্রস্তুত থাকবে।

শেখ হাসিনা বলেন, ‘আসুন আমরা আমাদের জনগণের স্বার্থে আঞ্চলিক রাজনৈতিক বাস্তবতায় ভারসাম্য আনি। স্বল্পমেয়াদী অর্জনের জন্য আমরা দীর্ঘমেয়াদী স্বার্থ বিসর্জন দিতে পারি না।’

সবাইকে এক অপরের হাত ধরার কথা উল্লেখ করে প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘অনুন্নত দেশ বা সমাজ যাতে পিছিয়ে না পড়ে। তারুণ্যে আকাঙ্খা ও চাহিদাকে মূল্য দিতে হবে। আমাদের জ্ঞান-অভিজ্ঞতা-দক্ষতা-বিনিয়োগের মাধ্যমে দক্ষিণ এশিয়াজুড়ে একে অপরের হাত ধরে রাখতে হবে।’

‘সবার সঙ্গে বন্ধুত্ব, কারো সঙ্গে শত্রুতা নয়’- বঙ্গবন্ধুর এ নীতি অনুসরণ করে আঞ্চলিক সম্পর্ক রক্ষার অব্যাহত প্রচেষ্টার কথা তুলে ধরেন তিনি।

তিনি বলেন, অভিন্ন নদীর প্রবাহমানতা নিয়ে ভারত ও বাংলাদেশ এখন কাজ করছে। আন্তঃদেশীয় গ্রিড সংযোগের মাধ্যমে ভারত থেকে বিদ্যুৎ কেনা হচ্ছে।

তার মতে, এধরনের সহযোগিতামূলক সংস্কৃতি আমাদের রাজনীতি, অর্থনীতি ও সমাজজুড়ে অপরিহার্য। অন্যদিকে, আমাদের বেসরকারি খাতগুলো একে অপরের সঙ্গে স্বচ্ছ ও ন্যায্যভাবে প্রতিযোগিতা করবে।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘সব সম্প্রদায় ও দেশের মধ্যে পারস্পরিক আস্থা ও শ্রদ্ধাই প্রধান। আমাদেরকে ভুল ধারণা ও ভুল বোঝাবুঝি কাটিয়ে উঠতে হবে।’

অমৃতবাজার/এএস