ঢাকা, রোববার, ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৮ | ৮ আশ্বিন ১৪২৫ বঙ্গাব্দ

সর্বনিম্ন কলরেট ১০ পয়সা করার দাবি


অমৃতবাজার ডেস্ক

প্রকাশিত: ১০:১৪ পিএম, ১৮ আগস্ট ২০১৮, শনিবার
সর্বনিম্ন কলরেট ১০ পয়সা করার দাবি

দেশের সব মোবাইল ফোন অপারেটরের মিনিট প্রতি কলচার্জ সর্বনিম্ন ১০ পয়সা করার দাবি জানিয়েছে সিটিজেনস রাইটস মুভমেন্ট। সম্প্রতি বিটিআরসির নির্দেশে মোবাইলের জন্য প্রতি মিনিট সর্বোচ্চ ২ টাকা এবং সর্বনিম্ন ৪৫ পয়সা ট্যারিফ নির্ধারণের প্রতিবাদের পাশাপাশি এ দাবি জানায় সংগঠনটি।

শনিবার সকালে রাজধানীর ক্রাইম রিপোর্টার্স অ্যাসোসিয়েশন মিলনায়তনে কলরেট বাড়ানোর প্রতিবাদে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে সিটিজেন রাইটস মুভমেন্টের পক্ষ থেকে এসব কথা বলা হয়।

গত ১৩ আগস্ট মধ্যরাত থেকে বাংলাদেশের টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রক সংস্থা- বিটিআরসির নির্দেশে দেশের সব মোবাইল ফোন অপারেটর সর্বনিম্ন কলরেট ২৫ পয়সা উঠিয়ে ৪৫ করার নির্দেশনা দেয়। এরপর থেকে ২৫ পয়সার গ্রাহকদের বেশি অর্থ গুণতে হচ্ছে। তাদের বর্তমানে মিনিট প্রতি ৭০ পয়সার মতো গুণতে হচ্ছে।

সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পড়ে শোনান সিটিজেন রাইটস মুভমেন্টের মহাসচিব তুষার রেহমান। বিটিআরসির সাবেক চেয়ারম্যান সৈয়দ মার্গুব মোর্শেদও এতে উপস্থিত ছিলেন। তুষার রেহমান বলেন, কলরেট বিষয়ে বিটিআরসির ভাষ্য শুনলে মনে হয়, তারা মোবাইল ফোন কোম্পানিগুলোর মুনাফা বাণিজ্যের অংশীদার বৈ কিছু নয়। সংবাদ সম্মেলনে ১১ দফা দাবি উত্থাপন করেন তুষার রেহমান।

দুই দশকে মোবাইল ফোন অপারেটটরা কত টাকা বিদেশে নিয়েছে, তা নিয়ে একটি শ্বেতপত্র প্রকাশের দাবি জানান তিনি। একইসঙ্গে বিটিআরসির স্বচ্ছতা ও জবাবদিহিতা নিশ্চিত করার লক্ষ্যে একটি সামাজিক পর্যালোচনা পরিষদ গঠনের দাবিও জানানো হয়।

সিটিজেন রাইটস মুভমেন্টের আরো কিছু দাবির মধ্য ছিল- তরুণ প্রজন্মের কথা ভেবে রাত ১০টা থেকে সকাল ৬টা পর্যন্ত এই ৮ ঘণ্টা প্রতি মিনিট সর্বোচ্চ কল চার্জ ১ টাকা নির্ধারণ করা, প্রতি ১০ জিবি ইন্টারনেটের মূল্য ১০০ টাকা নির্ধারণ।

অমৃতবাজার/সুজন